শরীরের নিকোটিন কমাবেন যেভাবে

0
158
nicotine

সিগারেটের মূল উপাদান নিকোটিন স্নায়ু ও পেশীর কোষ ব্লক করে দেয়। নিকোটিন হৃদস্পন্দন, রক্তচাপ এবং স্ট্রোকের ঝুঁকি বাড়ায়। নির্দিষ্ট কিছু খাবার ও পানীয় গ্রহণের মাধ্যমে এ নিকোটিন খারাপ প্রভাব কমিয়ে আনা সম্ভব।

এ তালিকায় প্রথমেই আছে ব্রোকলি। এটি ফুসফুসকে টক্সিন থেকে রক্ষা করে। ফুসফুসের কোষকে আক্রমণ থেকে রক্ষা করে। নিকোটিন ভিটামিন সি হ্রাস করে এবং চাপ বৃদ্ধি করে। কমলা খেলে ভিটামিন সি-এর স্তর পরিপূর্ণ হয় এবং স্ট্রেস ও উদ্বিগ্নতা কমে।

ধূমপায়ীদের ফলিক এসিডের সাপ্লাই কম থাকে। এই এসিড মাংসপেশি, স্নায়ু এবং ব্রেইন হেলথ ঠিক রাখার জন্য প্রয়োজন। পালং শাকে যা প্রচুর পরিমাণে থাকে।

প্রতিদিন এক কাপ গাজরের জুস পান করলে তা শরীর থেকে নিকোটিন বের করে দিতে সাহায্য করে।
নিকোটিন শরীরকে পানিশূন্য করে। আর নিকোটিনের দ্বারা শরীরের অভ্যন্তরের যে ক্ষতি হয় তার বিরুদ্ধে যুদ্ধ করে পানি। প্রতিদিন কমপক্ষে ৮ গ্লাস পানি পান করলে শরীর থেকে বিষাক্ত দ্রব্য বের হয়ে যায়।

কম ঘুমের স্বাস্থ্যঝুঁকি

আরও পড়ুনঃ   নিত্যদিনের পিঠে ব্যথা নিরাময়ে করণীয় কী?

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

16 + 12 =